মৌলবাদীদের নিশানায় দুর্গাপুজো, তাণ্ডব চালিয়ে মাথা কাটা হল প্রতিমার,

মৌলবাদীদের নিশানায় দুর্গাপুজো, তাণ্ডব চালিয়ে মাথা কাটা হল প্রতিমার,

 

বাংলাদেশে ফের মৌলবাদীদের নিশানায় দুর্গাপুজো। ভাঙচুর চালানো হল পুজোর মণ্ডপে। মাথা কেটে ফেলা হল প্রতিমার। রাতের অন্ধকারে ভেঙে দেওয়া হল প্রতিমা।

পুলিশ সূত্রে খবর, রাজধানী ঢাকা থেকে প্রায় ১০০ কিমি দুরের কুমিল্লা জেলায় ভাঙচুর চালানো হয় দুর্গা মণ্ডপে। সোমবারের ওই ঘটনায় উত্তেজনা ছড়িয়েছে কুমিল্লার মুরাদনগর এলাকায়। প্রতিবছরের মতোই এবারও বিমল চন্দ্র দাসের বাড়িতে দুর্গাপুজোর আয়োজন চলছিল। প্রতিমা গড়া থেকে শুরু করে মণ্ডপ, সব প্রস্তুতি সারা হয়ে গিয়েছিল। এমনই সময় সোমবার রাতে একদল দুষ্কৃতী মুখে কালো কাপড় বেঁধে তাঁর বাড়িতে হামলা চালায়। হামলাকারীরা লক্ষী, সরস্বতী, কার্তিক ও গণেশের প্রতিমা ভেঙে ফেলে।

ঘটনার পর মুরাদনগর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন বিমল চন্দ্র দাস। তারপরই ঘটনাস্থলে পৌঁছন ওসি এসএম বদিউজ্জামান ও জেলা পুলিশ সুপার শাহ আবিদ হোসেন। পুজা কমিটির সভাপতি রাখাল চন্দ্র দাস জানান, রাতে পাহারার দায়িত্বে থাকা লোকজন ঘুমিয়ে পড়ার পর হামলা চালায় দুষ্কৃতীরা। ইতিমধ্যে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। যদিও এখনও পর্যন্ত কাউকে গ্রেপ্তার করা হয়নি। এই ঘটনায় ম্লান হয়ে গিয়েছে উৎসবের আনন্দ। এলাকার হিন্দু সম্প্রদায়ের মধ্যেও ছড়িয়েছে ব্যাপক আতঙ্ক।

বাংলাদেশে  দুর্গাপুজায় মৌলবাদীদের হামলার ঘটনা এই প্রথম নয়। এর আগেও ফরিদপুর জেলার মধুখালীতে সাতটি মণ্ডপে হামলা চালিয়ে প্রতিমা ভাঙচুর করা হয়। আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয় মণ্ডপগুলিতে। উল্লেখ্য, এবার বাংলাদেশ জুড়ে প্রায় ৩০ হাজার পুজোর আয়োজন করা হয়েছে।  রাষ্ট্রপতি মহম্মদ আবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং বিএনপি প্রধান খালেদা জিয়া শারদীয় দুর্গোৎসবে হিন্দু সম্প্রদায়কে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

 

Related posts:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *