হিন্দু ধর্মকে ভাগ করার জন্য বিল পাশ করলো কংগ্রেস সরকার,

হিন্দু ধর্মকে ভাগ করার জন্য বিল পাশ করলো কংগ্রেস সরকার, ভোটে জেতার আবার তাদের সবথেকে পুরনো পুরনো অস্ত্র ডিভাইড নীতিতে এবারও নিশানায় হিন্দু ধর্ম।

 

বিজেপির বিরুদ্ধে ধর্মের নামে রাজনীতি করার অভিযোগ করা কংগ্রেস পার্টি এবার ভোটে জেতার আবার তাদের সবথেকে পুরনো পুরনো অস্ত্র ডিভাইড অ্যান্ড দুল নীতি নিল। আর এবারও তাদের নিশানায় হিন্দু ধর্ম।

দীর্ঘ ৫ বছর ধরে অপশাসন চালানো কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রী সিদ্ধারামাইয়া তার বিরুদ্ধে ওঠা মুসলিম তোষন, একের পর এক হিন্দু হত্যা এবং জঙ্গলরাজের অভিযোগ সামাল দিতে এবার একজোট হওয়া হিন্দুদের ভাঙার জন্য নোংরা খেলায় মাতলো।

প্রাপ্য খবর অনুযায়ী আজ কর্নাটকের কংগ্রেস সরকার রাজ্যের ১৭% জনসংখ্যার লিঙ্গায়াত সম্প্রদায়কে আলাদা ধর্মের স্বীকৃতি দেওয়ার জন্য তারা আইন পাশ করলো। বিশেষজ্ঞরা বলছেন যে এটা কংগ্রেস পার্টির পুরনো পন্থা যার মাধ্যমে হিন্দু ধর্মকে দুর্বল করে তাকে অদূর ভবিষ্যতে দেশ থেকে নির্মুল করার জন্য দল কাজ করে চলছে। উল্লেখ্য যে কর্নাটকের রাজনীতিতে এরা সবথেকে বড় নির্নায়ক শক্তি, এরা যেদিকে ভোট দেবে, সেই দলের রাজ্যে জয় প্রায় নিশ্চিত। আর বিজেপির নেতা তথা এবারের মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী ইয়েদুরাপ্পাও এই সম্প্রদায়ের থেকেই আসেন।

 

তবে এই পদক্ষেপের বিরুদ্ধে স্বাভাবিক ভাবেই সরব হয়েছে বিজেপি। তাদের দাবী যে কংগ্রেসের হিন্দু বিভাজনের এই ষড়যন্ত্র কোনদিনই সফল হবে না এবং কর্ণাটকের সাধারণ লিঙ্গাইয়া সম্প্রদায়ের সবাই হিন্দু এবং তারা নিজেরাই এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াবেন।

 

 

Related posts:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *